ঢাকা   ২১শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ । ৭ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম :
কুমিল্লায় মনোহগরঞ্জ থানা ছিনতাইকৃত আসামী গ্রেফতার মায়ের সাথে অভিমান করে কলেজ ছাত্রীর আত্মহত্যা নরসিংদীর নজরপুরে উপজেলা নির্বাচন পরবর্তী সহিংসতায় আহত- ২০ গোপালগঞ্জ পৌর আওয়ামী লীগের পূর্ণাঙ্গ কমিটি প্রকাশ ভূমধ্যসাগরে মৃত ১১ জনের মধ্যে ০২ জনের বাড়ি মাদারীপুরে নীলফামারীর বাসীদের সচেতন হওয়ার প্রয়োজন নওগাঁ সিদ্দিকিয়া ফাজিল ডিগ্রি মাদ্রাসা ৫০ বছর পূর্তি ও পূর্ণমিলনী অনুষ্ঠান চট্টগ্রাম বিভাগ সহ সারা বাংলাদেশ ৫/৭ জেলায় দেখা মিলল এই রাসেল ভাইপার সাপ ভোলার শশীভূষণে বজ্রপাতে এক শ্রমিকের মৃত্যু মৌলভীবাজার জেলার বড়লেখায় জেলা প্রশাসকের বন্যার্তদের মাঝে খাদ্যসামগ্রী বিতরণ

২টি হালাল ব্যবসা

প্রতিবেদকের নাম
  • প্রকাশিত : সোমবার, মার্চ ৪, ২০২৪
  • 45 শেয়ার

খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি:

১. একটি হালাল কাপড়ের দোকান
একটি হালাল পোশাকের দোকান সকল মুসলমানদের জন্যই সেরা ব্যবসার ধারণা। আপনার দোকানে সব ধরনের মুসলিম পোশাক থাকতে পারে। পোশাক গুলো একচেটিয়াভাবে মহিলাদের জন্য বা পুরুষের জন্য; অথবা উভয়ের জন্যই হতে পারে।

মহিলাদের জন্য আপনার দোকানে বোরকা, হিজাব, শালোয়ার কামিজ, দুপাট্টা, স্কার্ফ এবং সব ধরনের লেডিস পোশাক রাখতে পারেন। অন্যদিকে পুরুষদের জন্য পাঞ্জাবি, পাজামা, টুপি, হজের পোশাক ও জায়নামাজ ইত্যাদি রাখতে পারেন।

আবার আপনি চাইলে বাচ্চাদেরকে টার্গেট করেও একটি পোশাকের দোকান দিতে পারেন। বাচ্চাদের পোশাকের দোকানও বাংলাদেশ ও ইন্ডিয়াতে বেশ ভালোই চলে। আবার এই ব্যবসাটি ক্রমাগত ভাবে সব স্থানেই জনপ্রিয় হয়ে উঠেছে এবং এটি একটি লাভজনক ব্যবসাও বটে।

তবে মনে রাখবেন, আপনার কাপড়ের দোকানের জন্য একটি ভালো অবস্থান প্রয়োজন। এতে সফলতার হার অনেক বেশি। যদিও ভালো অবস্থানে দোকান দিতে তুলনামূলক বেশি ইনভেস্টেমেন্ট এর প্রয়োজন হবে। তবে আপনার যদি ইনভেস্টেমেন্ট করার মতো সুযোগ না থাকে, তবে ব্যবসাটি শুরু করার জন্য আপনি অনলাইনে একটি ভার্চুয়াল পোশাকের দোকান শুরু করতে পারেন, বর্তমানে তা অনেকেই করছে।

২. নিরাপদ এবং স্বাস্থ্যকর খাবার সরবরাহ ব্যবসা
হালাল ব্যবসা গুলোর মধ্যে খাদ্যসামগ্রী একটি জনপ্রিয় ব্যবসার রূপ নিয়েছে। মানসম্পন্ন খাদ্যের গুরুত্ব অপরসীম। মুসলিম -অমুসলিম সকলের কাছেই হালাল খাবার পছন্দের। কারণ, হালাল খাবার নিরাপদ ও স্বাস্থ্যকর। তাই আপনি হালাল ও স্বাস্থ্যকর খাবার সরবরাহ করে নিরাপদ ব্যবসা করতে পারেন।

হতে পারে সেটা ফাস্ট ফুড এর দোকান, ফলের দোকান, মিষ্টির দোকান বা মনোহারি দোকান ইত্যাদি। খাবারের দোকান যে কোনো স্থানেই কম-বেশি চলে। খাবারের ব্যবসা একটি নিত্যপ্রয়োজনীয় চলমান ব্যবসা যা অত্যন্ত লাভজনকও ।

এ সম্পর্কিত আরো সংবাদ
© স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০২৪