ঢাকা   ২৬শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ । ১২ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম :
গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধিতে শ্রদ্ধা জানিয়েছেন নবনিযুক্ত সেনাবাহিনী প্রধান বঙ্গবন্ধু লেখক সাংবাদিক ফোরাম সিলেটের ৭ সদস্য বিশিষ্ট আহবায়ক কমিটি গঠিত বড়বাজারের মেহতা বিল্ডিং এর চারতলায় ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড কুমিল্লায় নারী মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার কলেজ অ্যাডমিশন পোর্টালের সার্বিক অব্যবস্থার প্রতিবাদে, শ্যামবাজার থেকে কলেজ স্ট্রীট পর্যন্ত মহামিছিল করলেন বেলা বড়াইগ্রামের নবনির্বাচিত উপজেলা চেয়ারম্যানের শপথ গ্রহণ শেরপুরে ট্রাক্সফোর্স অভিযানে গ্যাস ডিলার পাম্প ও ক্লিনিকে জরিমানা আটপাড়ায় জিপি-এ ৫ প্রাপ্ত এসএসসি কৃতি শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা বরিশালের প্রাচীন ঐতিহ্য মোঘল আমলের দৃষ্টিনন্দন মিয়া বাড়ি মসজিদ

সীতাকুণ্ডে অভিযানের কথা শুনে পালালো ল্যাব মালিক

প্রতিবেদকের নাম
  • প্রকাশিত : রবিবার, মার্চ ৩, ২০২৪
  • 54 শেয়ার

মোঃ বেলাল হোসেন, চট্টগ্রাম প্রতিনিধি:

চট্টগ্রামের সীতাকুণ্ডের কুমিরা এলাকায় বিভিন্ন ডায়গনিক সেন্টারে অভিযান চালানো হয়েছে। রবিবার (৩ মার্চ) দুপুর ১ টার দিকে সীতাকুণ্ড উপজেলার কুমিরা ইউনিয়ন এলাকায় এই অভিযান চালানো হয়।অভিযান চলাকালে খবর পেয়ে ল্যাব মালিক তালা লাগিয়ে পালিয়েছে।

এ সময় কুমিরা হেলথ প্লাস ডায়াগনস্টিক সেন্টারকে নির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা করা হয়।এদিকে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের নির্দেশনা মোতাবেক সীতাকুণ্ড উপজেলা স্বাস্হ্য বিভাগের উদ্যোগে বিভিন্ন বেসরকারি ক্লিনিক ও ডায়াগনস্টিক সেন্টার পরিদর্শন কার্যক্রম পরিচালনার অংশ হিসেবে উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. নুর উদ্দিন রাশেদ কুমিরা এলাকার বিভিন্ন ডায়াগনস্টিক সেন্টার পরিদর্শনকালে তাঁর সাথে উপস্থিত ছিলেন মেডিকেল অফিসার ডা. ফারহান নাসিম, ডা. বিবি কুলসুম সুমি, পরিসংখ্যানবিদ ইমাম উদ্দিন এবং সীতাকুণ্ড প্রেসক্লাব সদস্য সঞ্জয় চৌধুরী।

পরিদর্শনকালে কুমিরায় অবস্থিত হেলথ প্লাস ডায়াগনস্টিক সেন্টার অভিযানের খবর শুনে তালা লাগিয়ে পালিয়ে যায়। সে কারণে এবং অত্র ডায়াগনস্টিক সেন্টারটি লাইসেন্স না থাকায় অনির্দিষ্টকালের জন্য বন্ধ ঘোষণা করা হয়। এ ছাড়া ইউনিটি হেলথ কেয়ার ডায়াগনস্টিক সেন্টার সরকারি নির্দেশনা যথাযথভাবে পালন করেনি।

তাছাড়া তাদের লাইসেন্স থাকা সত্ত্বেও বিভিন্ন অনিয়ম পরিলক্ষিত হওয়ায় তাদেরকেও দুই দিনের মধ্যে সকল কিছু ঠিক করে অত্র কার্যালয়ে জানানোর জন্য নির্দেশ প্রদান করাসহ ইসিজি এবং এক্সরে মেশিন নষ্ট হওয়ায় বন্ধ রাখার জন্য বলা হয়েছে। এরপর অরবিট ডায়াগনস্টিক সেন্টারে পরিদর্শন করা হয়।পরিদর্শনকালে সকল কিছু এবং লাইসেন্স আপডেট থাকা সত্ত্বেও নির্দেশনা না মেনে ল্যাব পরিচালনা করার জন্য নির্দেশ প্রদান করা হয়।

এ অভিযান চলমান থাকবে বলে জানিয়েছেন উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা. নুর উদ্দিন রাশেদ।

এ সম্পর্কিত আরো সংবাদ
© স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০২৪