ঢাকা   ২৬শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ । ১২ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম :
গোপালগঞ্জের টুঙ্গিপাড়ায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের সমাধিতে শ্রদ্ধা জানিয়েছেন নবনিযুক্ত সেনাবাহিনী প্রধান বঙ্গবন্ধু লেখক সাংবাদিক ফোরাম সিলেটের ৭ সদস্য বিশিষ্ট আহবায়ক কমিটি গঠিত বড়বাজারের মেহতা বিল্ডিং এর চারতলায় ভয়াবহ অগ্নিকাণ্ড কুমিল্লায় নারী মাদক ব্যবসায়ী গ্রেফতার কলেজ অ্যাডমিশন পোর্টালের সার্বিক অব্যবস্থার প্রতিবাদে, শ্যামবাজার থেকে কলেজ স্ট্রীট পর্যন্ত মহামিছিল করলেন বেলা বড়াইগ্রামের নবনির্বাচিত উপজেলা চেয়ারম্যানের শপথ গ্রহণ শেরপুরে ট্রাক্সফোর্স অভিযানে গ্যাস ডিলার পাম্প ও ক্লিনিকে জরিমানা আটপাড়ায় জিপি-এ ৫ প্রাপ্ত এসএসসি কৃতি শিক্ষার্থীদের সংবর্ধনা বরিশালের প্রাচীন ঐতিহ্য মোঘল আমলের দৃষ্টিনন্দন মিয়া বাড়ি মসজিদ

বান্দরবান কেমিস্ট এন্ড ড্রাগিস্ট সমিতির মিলন মেলা ও বনভোজন

প্রতিবেদকের নাম
  • প্রকাশিত : সোমবার, মার্চ ৪, ২০২৪
  • 153 শেয়ার

রিটন কুমার নাথ, বিশেষ প্রতিনিধি বান্দরবান:

প্রতি বছরের ন্যায় ৪ মার্চ ২০১৪ বান্দরবান কেমিস্ট অ্যান্ড ড্রাগিস্টদের নিয়ে এক মিলন মেলা অনুষ্ঠিত হয় ‌। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি ছিলেন বান্দরবানের পৌর মেয়র সামসুল ইসলাম , প্রধান আলোচক ছিলেন জনাব নুরুল মোস্তফা বিন বশির, ওষুধ তত্ত্বাবধায় ক কক্সবাজার রিজিয়ন। পুরো অনুষ্ঠানটি সভাপতিত্ব করেন আলহাজ্ব জনাব মোঃ শফিকুর রহমান সভাপতি বাংলাদেশ কেমিস্ট এন্ড ড্রাগিস্ট সমিতি বান্দরবান পার্বত্য জেলা। মিলন মেলায় অনুষ্ঠানে আরো উপস্থিত ছিলেন বান্দরবান কেমিস্ট এন্ড ড্রাগিস্ট সমিতির সাধারণ সম্পাদক শিমুল দাশ মহোদয় , উপস্থিত ছিলেন বান্দরবান ব্যবসায়িক ঐক্য পরিষদের সভাপতি বাংলাদেশ হিন্দু ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্ট এর ট্রাস্টি বাবু অমল দাশ এবং বান্দরবান কেমিস্ট অ্যান্ড ড্রাগিস্ট সমিতির বিভিন্ন সদস্য বৃন্দরা।

অনুষ্ঠানে প্রথমে আলোচনা সভা,পরে পর্যায়ক্রমে মধ্যাহ্ন ভোজ, ক্রীড়া প্রতিযোগিতা রেফেল ড্র ও পুরস্কার বিতরণের মাধ্যমে অনুষ্ঠানটি সমাপ্তি ঘোষণা করেন সভাপতি মহোদয়। মিলনমেলা অনুষ্ঠানে প্রধান আলোচক জনাব নুরুল মোস্তফা বিন বশির বক্তব্য বলেন বান্দরবানে যে ফার্মেসিগুলো রয়েছে সব ফার্মেসিতে ড্রাগ লাইসেন্স এবং ট্রেড লাইসেন্স বাধ্যগত থাকতে হবে, কোন অবস্থাতে ড্রাগ লাইসেন্স এবং ট্রেড লাইসেন্স ছাড়া ফার্মেসি করা যাবে না। তাছাড়া প্রত্যেক ফার্মেসিতে একজন ফার্মাসিস্ট থাকতে হবে কোন ওষুধ ডি আর নাম্বার ছাড়া বিক্রি করা যাবে না কোন স্যাম্পল এর ওষুধ বিক্রয় ও মজুদ করা যাবে না।

তাছাড়া তিনি বক্তব্যে আরও বলেন আমরা যে এন্টিবায়োটিক ওষুধ ব্যবহার করে থাকি তার সম্পূর্ণ অনিরাপদ। এন্টিবায়োটিক ওষুধ একমাত্র রেজিস্টার চিকিৎসক ছাড়া অন্য কোন চিক ।

এ সম্পর্কিত আরো সংবাদ
© স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০২৪