ঢাকা   ১৩ই জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ । ৩০শে জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ
শিরোনাম :
আসন্ন ঈদ উপলক্ষে ময়মনসিংহ শিল্প পুলিশ শিল্পাঞ্চলে আইন-শৃঙ্খলা রক্ষায় বদ্ধপরিকর বিজিবির উত্তর-পশ্চিম রিজিয়ন আন্তঃব্যাটালিয়ন কারাতে প্রতিযোগিতা অনুষ্ঠিত নাগরপুরে অনুষ্ঠিত হলো বঙ্গবন্ধু ও বঙ্গমাতা ফুটবল টুর্নামেন্ট’২৪ বড়ইতলা নদীর উপর ব্রিজ নির্মাণের দাবিতে মানববন্ধন চাঁপাইনবাবগঞ্জে পাট চাষি সমাবেশ-২০২৪ পবিত্র ঈদুল আযহার শুভেচ্ছা জানিয়েছেন দেশ প্রিয় পত্রিকার চট্টগ্রাম বিভাগীয় ব্যুরো প্রধান পাবনায় শিশু পরিবারের শিক্ষার মানোন্নয়ন ও সুস্বাস্থ্য নিশ্চিতে করণীয় শীর্ষক কর্মশালা অনুষ্ঠিত এস এস সি পরীক্ষার্থী জিপিএ ৫ প্রাপ্তদের মধ্যে পনেরো হাজার টাকা বিতরণ মাদারীপুর জেলা শিবচরে খামারে আগুন, ১৩ গরু, সাড়ে ৩ হাজার মুরগি পুড়ে ছাই নীলফামারীতে যুবকের ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

জামিনে মুক্ত রংপুর মহানগর বিএনপির সদস্য সচিব ডন

প্রতিবেদকের নাম
  • প্রকাশিত : সোমবার, মার্চ ৪, ২০২৪
  • 191 শেয়ার

মাটি মামুন, রংপুর প্রতিনিধি:

জামিনে মুক্ত হলেন রংপুর মহানগর বিএনপির সদস্য সচিব মাহফুজ উন নবী ডন। বিশাল মোটরসাইকেল শোডাউনের মাধ্যমে তাকে বরণ করা হয় কারাগারের ফটক থেকে। রোববার (৩ মার্চ) সন্ধ্যায় রংপুর কেন্দ্রীয় কারাগার থেকে মুক্ত হন তিনি সেখানে কয়েকশ নেতাকর্মী তাকে ফুলের মালা দিয়ে বরণ করেন। পরে নগরীতে শতাধিক মোটরসাইকেল শোভাযাত্রা দিয়ে তাকে বাড়িতে আনা হয়। এ সময় ডনকে খোলা জীপে রাস্তার দুইপাশের লোকজনকে স্বাগত জানান।

ডনের মামলার আইনজীবী অ্যাডভোকেট আফতাব হোসেন জানান, ২০১৩ সালের ১৯ মে রংপুর পলিটেকনিক ইনস্টিটিউটের ভেতরে পুকুর পাড়ে নাশকতা সৃষ্টির উদ্দেশে সমেবত হওয়া এবং চকলেট বোমা ও বোমা তৈরির সরঞ্জাম উদ্ধারের একটি মিথ্যা মামলা হয়।
এ মামলায় ডনসহ পাঁচ নেতাকে গত বছর ২০ নভেম্বর ১০ বছর করে কারাদণ্ডাদেশ দেয় রংপুরের অতিরিক্ত জেলা ও দায়রা জজ আদালত-১-এর বিচারক কৃষ্ণকান্ত রায়। এর আগে গত বছর ২৯ অক্টোবর অবরোধের সময় নগরীর গ্রান্ড হোটেল মোড়ের দলীয় কার্যালয় থেকে তাকে গ্রেফতার করা হয়।

পরবর্তীতে ওই মামলায় হাইকোর্টে আপিল করলে জামিন মঞ্জুর করেন। তার বিরুদ্ধে ১৯টি মামলা আছে। সব মামলায় জামিনে আছেন তিনি।

এছাড়াও একইদিনে জামিনে মুক্তি হয়েছেন মহানগর স্বেচ্ছাসেবক দলের সাবেক সভাপতি রাশেদুন্নবী।মুক্ত হওয়ার পর মাহফুজ উন নবী ডন বলেন, এই জালিম সরকার মিথ্যা মামলা দিয়ে আমাকে কারান্তরীণ করেছিল। আলহামদুলিল্লাহ মুক্তি পেয়েছি। আমাদের নেত্রী বেগম খালেদা জিয়াসহ সকল রাজবন্দীকে মুক্তি দিতে হবে।

বাংলাদেশের জনগণ প্রত্যাখ্যাত নির্বাচন বাতিল করে তত্ত্বাবধায়ক সরকারের অধীনে নির্বাচন দিতে হবে। দাবি আদায় না হওয়া পর্যন্ত আন্দোলন সংগ্রাম চলবে।

এ সম্পর্কিত আরো সংবাদ
© স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০২৪