ঢাকা   ২১শে জুন, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ । ৭ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কুমিল্লা সিটি কর্পোরেশন উপনির্বাচনের ইশতেহার ঘোষনা করেন মেয়র প্রার্থী নিজাম উদ্দিন কায়সার

প্রতিবেদকের নাম
  • প্রকাশিত : সোমবার, মার্চ ৪, ২০২৪
  • 35 শেয়ার

সালমা আক্তার, দাউদ কান্দি (কুমিল্লা) প্রতিনিধি:

কুমিল্লা সিটি কর্পোরেশন উপ-নির্বাচন কে সামনে রেখে রবিবার (৩রা মার্চ) নির্বাচনী ইশতেহার ঘোষণা করেন ঘোড়া মার্কার স্বতন্ত্র প্রার্থী নিজাম উদ্দিন কায়সার। নির্বাচনী ইশতেহারে তিনি বলেন সামাজিক, রাজনৈতিক, ধর্মীয় সম্প্রীতির অনন্য স্থান ছিল এই কুমিল্লা। আজ যেটা স্বপ্ন। এক অজানা ভয় কাজ করছে, কেউ যেন সত্য ও সঠিক কথা বলতে পারছি না। আমি পরিবর্তনের ধারায় নিরাপদ ও সম্প্রীতির কুমিল্লা গড়ে তুলতে চাই। যানজট নিরসনে বহুমুখী প্রকল্প গ্রহণ করা হবে। কুমিল্লা মহানগরীতে প্রবেশ-নির্গমনের জন্য পদুয়ার বাজারে ফ্লাইওভার, টমছমব্রিজে আন্ডারপাস নির্মাণ এবং গুরুত্বপূর্ণ সড়কে ইন্টারসেকশনে ফুটওভার ব্রিজ নির্মাণ করা হবে।

আবাসন:
ভৌগোলিক দিক থেকে কুমিল্লা বাংলাদেশের একটি অন্যতম স্থান। কুমিল্লা হতে পারে দেশের পূর্ব-দক্ষিণাঞ্চলের আবাসিক রাজধানী। সিটি কর্পোরেশন এলাকায় জনসংখ্যার ক্রমবর্ধমান চাপ হ্রাস সময়ের দাবি। এজন্য নিতে হবে কার্যকর ব্যবস্থা। এবিষয়ে আমি কার্যকরী ব্যবস্থা গ্রহণ করব। পরিকল্পিত আবাসন ব্যবস্থা তৈরি করতে গুচ্ছ আবাসন, বহুতল আবাসন গড়ে তোলার ছক নির্ধারণ করা হবে।

খাদ্য ও নগর কৃষি:
নগরের অভ্যন্তরে কোন জমি ফাঁকা পড়ে থাকলে তাতে কৃষি কাজে উৎসাহ দেয়া এবং আরবান এগ্রিকালচার বা ‘নগর কৃষি’ ব্যবস্থা চালুর ব্যাপারে জাইকাসহ বিভিন্ন উন্নয়ন সহযোগী সংস্থার সহায়তা নেয়া হবে।

স্বাস্থ্যসেবা :
নগরবাসীর স্বাস্থ্যসেবা সহজলভ্য করার কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে। নগর স্বাস্থ্য ক্লিনিক সমূহের মান বৃদ্ধি করার উদ্যোগ গ্রহণ। প্রতিটি বিনোদন এলাকা ও ওয়ার্ড ভিত্তিক (পার্ক, দিঘী, গোমতী নদী, বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠান) ওয়ান স্পট ক্লিনিক বা অত্যাধুনিক হেলথ্ চেকআপ বুথ (ডায়াবেটিক, প্রেসার, রক্তের গ্রুপিং, ওজন পরিমাপ) স্থাপনের ব্যবস্থা স্বল্প আয়ের মানুষের জন্য বিনামূল্যে চিকিৎসা সেবা প্রদান করা এবং সকলের জন্য ২৪ ঘন্টা (টেলি মেডিসিন/অনলাইন/মোবাইল এ্যাপস) চিকিৎসা সেবা সার্ভিস গড়ে তোলার লক্ষ্যে বিভিন্ন উন্নয়ন সংস্থার সমন্বয়ে কাজ করার পাশাপাশি সিটি কর্পোরেশন ও আমি ব্যক্তিগতভাবে নগরবাসীর সাথে আলোচনা করে উদ্যোগ গ্রহণ করব।

জলাবদ্ধতা :
নগরীর জলাবদ্ধতার বিষয়টি নতুন কিছু নয়। সুনির্দিষ্ট পরিকল্পনা ছাড়া ড্রেনেজ ব্যবস্থা গড়ে উঠার কারণে কুমিল্লা মহানগর এলাকায় একটু বৃষ্টি হলেই রাস্তাঘাট :
ও বাড়িঘর পানিতে ডুবে যায়। এজন্য পানি নিষ্কাশন ও বৃষ্টির পানিসমূহ প্রবাহের জন্য সকল ড্রেন ও খালের :
অবৈধ দখল উচ্ছেদপূর্বক বিশেষজ্ঞদের মতামত নিয়ে পরিকল্পনা (স্বল্প ও দীর্ঘকালীন) গ্রহণ করে নগরীর জলাবদ্ধতা দূরীকরণে কার্যকর ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

সু-শিক্ষা :
শিক্ষা সাংস্কৃতির পাদপিঠ কুমিল্লা। সে হারে বাড়েনি মানসম্মত শিক্ষা প্রতিষ্ঠান। কুমিল্লা সিটি কর্পোরেশনের উদ্যোগে একটি স্মার্ট স্কুল (মোবাইল এ্যাপস/অনলাইন) প্রতিষ্ঠা করা হবে (কুমিল্লা বিশ^বিদ্যালয়, মেডিকেল কলেজসমূহ ও ভিক্টোরিয়া সরকারি কলেজসহ উচ্চ শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের শিক্ষক, ছাত্রদের ও সংশ্লিষ্ট বিষয়ে অভিজ্ঞদের সম্পৃক্ত করে) অনলাইন ভিত্তিক শিক্ষামূলক তথ্যভান্ডার তৈরি করা হবে।

পর্যটন ও বিনোদন :
কুমিল্লায় বিনোদন এবং পর্যটন আকর্ষণের অন্যতম একটি স্থান। এ লক্ষ্যে নগরীর অন্তত ৫টি স্থানে বিনোদনপাড়া গড়ে তোলার উদ্যোগ গ্রহণ করা হবে যেখানে দেশী-বিদেশীরাও আকর্ষিত হবেন। সামাজিক, রাজনৈতিক, ধর্মীয় সম্প্রীতির অনন্য স্থান ছিল এই কুমিল্লা। আজ যেটা স্বপ্ন। এক অজানা ভয় কাজ করছে, কেউ যেন সত্য ও সঠিক কথা বলতে পারছি না। আমি পরিবর্তনের ধারায় নিরাপদ ও সম্প্রীতির কুমিল্লা গড়ে তুলতে চাই।

তারিখ : ৪/৩/২০২৪ ইং

এ সম্পর্কিত আরো সংবাদ
© স্বত্বাধিকার সংরক্ষিত ২০২৪